শিবগঞ্জে ব্যবসায়ীকে ছুরিকাঘাত করে টাকা ছিনতাই

শিবগঞ্জ (বগুড়া) প্রতিনিধি

বগুড়ার শিবগঞ্জে দোকান বন্ধ করে বাড়ি ফেরার পথে ব্যবসায়ীর পথরোধ করে ছুরিকাঘাতে নগদ এক লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এবিষয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

উপজেলার আটমূল ইউনিয়নের কুড়াহার মৃধাপাড়া গ্রামের মজিবর রহমানের ছেলে মাহিনুর রহমান মাহিন (২৪) গত ২৬ এপ্রিল রাত সাড়ে ৭টার দিকে জামুরহাটে তার ঔষধের ফার্মেসী বন্ধ করে বাড়ি ফেরার পথে কুড়াহার বটতলা নামক স্থানে ছুরিকাঘাত করে নগদ এক লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয় সন্ত্রাসীরা।

এ ঘটনায় মাহিনুরের বড় ভাই মতিউর রহমান বাদী হয়ে বুধবার (২৮ এপ্রিল) শিবগঞ্জ থানায় ৩জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা দায়ের করেছে। মামলার আসামিরা হলেন, কুড়াহার আয়নাপাড়া গ্রামের লুৎফর রহমানের ছেলে সাজু মিয়া(৩৫), বড় বেলঘড়িয়া (সৈয়দপুর) গ্রামের মজিদের ছেলে রমজান আলী(৩৪) ও কুড়াহার আয়নাপাড়া গ্রামের আব্দুল মান্নানের পুত্র মেহেদুল ইসলাম(২৫)। এছাড়াও অজ্ঞাতনাম ৪/৫ জনকে আসামী করা হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, মাহিনুর রহমান মাহিন ২৬ এপ্রিল রাত সাড়ে ৭টার দিকে কুড়াহার বটতলা নামক স্থানে পৌছা মাত্র পূর্ব হতে ওত পেতে থাকা সাজুগংরা মাহিনকে একা পেয়ে পথরোধ করে টাকা ছিনিয়ে নেওয়ার সময় প্রথমে বামহাতের পেশিতে এবং পরবর্তীতে পেটের বাম পার্শ্বে ছুরিকাঘাত করে নগদ ১লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয়। ওই ব্যবসায়ীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এলে হামলাকারীরা দ্রুত পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে মাহিনুর বলেন, সাজুগংরা তার দলবল নিয়ে প্রতিদিন এই গ্রামে আইপিএল উপলক্ষে জুয়া খেলে থাকে। তাদের টাকা না থাকায় রাস্তায় আমাকে ছুরিকাঘাত করে আমার কাছ থেকে নগদ এক লক্ষ টাকা ছিনিয়ে নেয় এবং আমাকে ছুরিকাঘাত করে।

এব্যাপারে বিবাদী সাজু মিয়া বলেন, আগামীতে ইউপি নির্বাচনে ওয়ার্ড সদস্য পদে নির্বাচন করবো। কিন্তু কিছু লোকজন আমাকে সামাজিক ভাবে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্য আমার বিরুদ্ধে আইপিএল খেলার নামে টাকা ছিনতাইয়ের মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেছে।

এ ব্যাপারে থানা অফিসার ইনচার্জ সিরাজুল ইসলাম বলেন, এঘটনায় মামলা নেওয়া হয়েছে। এখন আইনগত সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.