সুনামগঞ্জে ৫০ দম্পতিকে সংসার জীবনে ফেরাল আদালত

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:

৬৪

মোজাম্মেল আলম ভূঁইয়া-  সুনামগঞ্জে ৫০ দম্পতিকে আইনি জটিলতা নিরসন করে তাদের সংসার জীবনে ফিরে যাওয়ার সুযোগ করে দিয়েছে আদালত।

আজ মঙ্গলবার (১৫ মার্চ) দুপুরে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ জাকির হোসেন এক যুগান্তকারী রায় ঘোষনা করেন।

পরে সবাইকে ফুল দিয়ে অভিনন্দন জানানো হয়। এসময় মামলার বাদী-বিবাদী, তাদের আইনজীবী ও পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়- পারিবারিক কলহ, ভুল বোঝাবুঝি, যৌতুক, নির্যাতন ও পরিবারের অমতে বিবাহসহ বিভিন্ন কারণে আদালতে দায়ের করা মামলায় বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে ৫০টি পরিবার।

এর ফলে অনেকের সংসার ভেঙ্গে যায়। অনেক অবুঝ সন্তান বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় তার বাবা-মায়ের কাছ থেকে। এসব নানান সমস্যা নিয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে নিজের স্বামীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় মামলাগুলো দায়ের করেছিলেন ৫০ নারী।

তাদের সন্তানদের ভবিষ্যৎ ও সুখের জীবন ফেরানোর জন্য নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মোহাম্মদ জাকির হোসেন এক যুগান্তকারী রায় ঘোষনা করে।

কোনো আসামীকে কারাগারে না পাঠিয়ে সংসার জীবন চালিয়ে যাওয়ার শর্তে বাদীদের সঙ্গে আপোষ করিয়ে দেন। এই রায়ের ফলে অর্ধশত নারী-পুরুষ আবার তাদের সংসার জীবনে ফিরে যান।

এব্যাপারে সুনামগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন আদালতের পিপি এডভোকেট নান্টু রায় সাংবাদিকদের বলেন- সংসার করার শর্তে ৫০ দম্পতি অঙ্গিকারনামা দেওয়ায় মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। এটি একটি যুগান্তকারী রায়। এই রায়ে সবাই আনন্দিত।

 

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.