গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনকে সুরক্ষা দিতে ৫৭টি ওয়ার্ডে ৩ শত টন মশার ঔষধ ছিটানো হবে ..মেয়র এড. মো: জাহাঙ্গীর আলম

মো: বশির আলম, টঙ্গী (গাজীপুর) প্রতিনিধি:

৪৯

তিনদিনে একদিন, জমা পানি ফেলে দিন” এই শ্লোগানকে সামনে রেখে এডিস মশা নিধন করে, মশার লার্ভাকে ধ্বংস করে এই ডেঙ্গুর প্রকোপ থেকে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের নগরবাসীকে সুরক্ষা দিতে ৫৭টি ওয়ার্ডে ৩ শত টন মশার

ঔষধ ছিটানো হবে বলে জানিয়েছেন গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এড. জাহাঙ্গীর আলম। আজ শনিবার দুপুর ১২টায় গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রতিটি ওয়ার্ড জুড়ে মশক নিধন পরিছন্নতা কার্যক্রম ও চিরুনি অভিযান উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ডেঙ্গু মশার হাত থেকে নগরবাসীকে রক্ষা করতে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনরে ৫৭টি ওয়ার্ডে আজ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে মশার ঔষধ ছিটানো কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। ডেঙ্গু যেন কোন ভাবেই আমাদের শহরে উৎপাদন না হতে পারে সে জন্য কয়েকশত ফগার মেশিনের মাধ্যমে ৩শত টন মশার ঔষধ ছিটানোর প্রস্তুতি নিয়েছি।

আমরা নাগরিকদের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছি। সিটি কর্পোরেশনের ৫৭টি ওয়ার্ডে ৭৬জন কাউন্সিললদের যৌথ সহযোগিতায় কাজটি সম্পাদন করতে চাই। তিনি আরোও বলেন, আপনারা সকলেই জানেন, এখন বর্তমানে করোনা ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে।

সেই সাথে যদি ডেঙ্গু দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে তাহলে আমাদের ভয়াবহ ক্ষতি হবে। সকলে যেন ডেঙ্গু ও করোনামুক্ত থাকতে পারে সে জন্যে আমরা ইউরোপ থেকে প্রায় ৩শ’ টন মশা মারার ঔষধ আমদানি করেছি।

প্রাথমিক পর্যায়ে আমরা ৩শ’ টন ঔষধ দেওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিয়েছি পরবর্তীতে প্রয়োজন হলে আরো বাড়ানো হবে।
আমরা এ ঔষধ পরীক্ষামূলকভাবে প্রয়োগ করে শতভাগ সফলতা পেয়েছি। গাজীপুর সিটির মানুষ যেন ডেঙ্গু ও

করোনামুক্ত থাকতে পারে সে জন্য আমাদের সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে সকলের সহযোগিতায় কাজটি শুরু করেছি। প্রত্যেকেই যেন তার বাড়ির আশপাশ, বাড়ির ছাদ, সেসব সুরু জায়গায় আমাদর মেশিন ঢুকতে পারবে না

সেসব জায়গায় যেন সকলে নিজ দ্বায়িত্বে পরিষ্কার- পরিছন্ন রাখে। নিজেকে বাঁচতে হবে, অন্যকেও বাঁচাতে আমরা সকলে সকলের সহযোগিতা কামনা করি। আমরা স্থানীয় সরকারের সহযোগিতায় আমরা এ কাজটি শুরু করেছি।

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.