বাজার মূলধন কমেছে সাড়ে চার হাজার কোটি টাকা

আগের সপ্তাহের মতো গত সপ্তাহেও পতন হয়েছে শেয়ারবাজারে। সপ্তাহটিতে সব সূচক কমেছে। একই সাথে কমেছে টাকার পরিমাণে লেনদেনও। আর সপ্তাহটিতে বিনিয়োকারীরা সাড়ে চার হাজার কোটি টাকা মূলধন হারিয়েছে।

জানা গেছে, সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস লেনদেন শুরুর আগে ডিএসইতে বাজার মূলধন ছিল ৪ লাখ ৬৩ হাজার ৩৯৪ কোটি ৬০ লাখ ৫ হাজার টাকা। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় ৪ লাখ ৫৮ হাজার ৬৮০ কোটি ৫০ লাখ ২৮ হাজার টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে বিনিয়োগকারীরা চার হাজার ৭১৪ কোটি ৯ লাখ ৭৭ হাজার টাকা বাজার মূলধন হারিয়েছে।

গত সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ২ হাজার ২৮ কোটি ৮১ লাখ ৯০ হাজার ৩৪৪ টাকার লেনদেন হয়েছে। যা আগের সপ্তাহ থেকে ৯৮০ কোটি ২ লাখ ৩৯ হাজার ৫১৭ টাকা বা ৩২.৫৭ শতাংশ কম হয়েছে। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৩ হাজার ৮ কোটি ৮৪ লাখ ২৯ হাজার ৮৬১ টাকার।

ডিএসইতে গত সপ্তাহে গড় লেনদেন হয়েছে ৫০৭ কোটি ২০ লাখ ৪৭ হাজার ৫৮৬ টাকার। আগের সপ্তাহে গড় লেনদেন হয়েছিল ৬০১ কোটি ৭৬ লাখ ৮৫ হাজার ৯৭২ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে গড় লেনদেন ৯৪ কোটি ৫৬ লাখ ৩৮ হাজার ৩৮৬ টাকা কম হয়েছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৫৬.৬৯ পয়েন্ট বা ১.০৬ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ৫ হাজার ২৭০.৫৩ পয়েন্টে। অপর সূচকগুলোর মধ্যে শরিয়াহ সূচক ১৫.১৫ পয়েন্ট বা ১.২৪ শতাংশ এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৩৭.৬০ পয়েন্ট বা ১.৮৬ শতাংশ কমে দাঁড়িয়ে ১২০২.৫৪ এবং ১৯৮৩.৩০ পয়েন্টে।

গত সপ্তাহে ডিএসইতে মোট ৩৭১টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ৯১টির বা ২৪.৫৩ শতাংশের, কমেছে ১২৩টির বা ৩৩.১৫ শতাংশের এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১৫৭টির বা ৪২.৩২ শতাংশের শেয়ার ও ইউনিট দর।

অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) গত সপ্তাহে টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ১৩১ কোটি ৩৬ লাখ ৯৪ হাজার ৫১১ টাকার। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ২৮৫ কোটি ৭৯ লাখ ৩২ হাজার ৫৮৫ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে লেনদেন ১৫৪ কোটি ৪২ লাখ ৩৮ হাজার ৭৩ টাকা বা ১৫৪ শতাংশ কম হয়েছে।

সপ্তাহটিতে সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১৬৮.১২ পয়েন্ট বা ১.০৯ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ১৫ হাজার ২৫৬.৪১ পয়েন্টে। সিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে সিএসসিএক্স ১০১.৯২ পয়েন্ট বা ১.০৯ শতাংশ, সিএসই-৩০ সূচক ১৭০.১৭ পয়েন্ট বা ১.৪৪ শতাংশ, সিএসই-৫০ সূচক ২০.১০ পয়েন্ট বা ১.৭১ শতাংশ এবং সিএসআই ১২.৫৮ পয়েন্ট বা ১.২৭ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ৯ হাজার ২০৩.০৬ পয়েন্টে, ১১ হাজার ৬০৩.৯৩ পয়েন্টে, ১ হাজার ১৫৫.৬০ পয়েন্টে এবং ৯৭৮.৫১ পয়েন্টে।

সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে ২৯৪টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ৬৬টির বা ২২.৪৫ শতাংশের দর বেড়েছে, ১৪৮টির বা ৫০.৩৪ শতাংশের কমেছে এবং ৮০টির বা ২৭.২১ শতাংশের দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.